এস ইও কি? এবং কিভাবে কাজ করে বিস্তারিত জানুন

এস ইও কি? এবং কিভাবে কাজ করে বিস্তারিত জানুন


এস ই ও হচ্ছে সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশন,
 এবং ওয়েবসাইট কে অপ্টিমাইজ করার নিয়ম ।এসইও করার কারণ হচ্ছে একটা সাইটে খুব দ্রুত ট্রাফিক নিয়ে যাওয়ার মাধ্যম। আর এস ইউ এ বিষয়টি কাজ করে ওয়েবসাইট এবং সার্চ ইন্জিনের সমন্বয়ে। সার্চ ইঞ্জিন হচ্ছে গুগল ইয়াহু বিং ইয়ান্ডেক্স এবং আরো অনেক জনপ্রিয় সার্চ ইঞ্জিন রয়েছে। সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজ করা হয় ওয়েবসাইট কে। দুই টার মাঝে কাজ হলো আপনার ওয়েবসাইটটিকে সার্চ ইঞ্জিন এর সাথে কানেক্টেড করা টা হচ্ছে এস ইও।

সার্চ ইঞ্জিন কি


সার্চ ইঞ্জিন মূলত আমরা ব্যবহার করে থাকি গুগল বিং এ সমস্ত সাইট কে সার্চ ইঞ্জিন বলা হয়।
আমরা যারা ইন্টারনেট ব্যবহার করি আমরা সাধারণত সার্চ ইঞ্জিন গুলোতে আমাদের নির্দিষ্ট কিওয়ার্ড লিখে সার্চ করি।
 যেন আমরা আমাদের কাঙ্ক্ষিত ফলাফল টি দেখতে পাই। এবং সার্চ ইঞ্জিন গুলো আমাদের 2 থেকে ৩ সেকেন্ডের মধ্যে আমাদের কাঙ্ক্ষিত রেজাল্ট গুলো দেখিয়ে দেয়।
এটাই হল সার্চ ইঞ্জিন এবং সার্চ ইঞ্জিনের কাজ।
কেন আমরা এস ইও করব।

এসইও করার মূল কারণ হচ্ছে কোন একটি ওয়েবসাইটকে খুব দ্রুত জনপ্রিয় করা এবং ওয়েবসাইটকে গুগলের ফার্স্ট পেজে নিয়ে যাওয়া। যাতে করে ওয়েব সাইটে প্রচুর পরিমানে ভিজিটর আসে এবং ওয়েবসাইট থেকে যেন আর্নিং করা যায় ।
 আপনার ওয়েব সাইট যদি পরিপূর্ণভাবে এস ইও করতে পারেন তাহলে আপনার ওয়েবসাইটটি গুগলের ফার্স্ট পেজে চলে আসবে এবং আপনি প্রচুর পরিমাণে টাকা আর্ন করতে পারবেন একটি ওয়েবসাইট থেকে।
এ কারণেই মূলত আমরা ওয়েবসাইটকে এস ইউ করে থাকি।

এস ই ও কত প্রকার


এস ইও সাধারণত দুই প্রকার অন পেজ এসইও এবং অফ পেজ এসইও।
এবং এই দুই প্রকারের মধ্যে রয়েছে অর্গানিক এস ইও, এবং পেইট এস ইও  অর্গানিক এস ইও হচ্ছে এস ইও রুলস রেগুলেশন সব কিছু মেনে সাইড এস ইও করা হচ্ছে অর্গানিক এস ইও। এবং  টাকার বিনিময় গুগলের মাধ্যমে অথবা বিভিন্ন অ্যাড নেটওয়ার্কের মাধ্যমে ওয়েবসাইটকে রেন্ক করানো টা হচ্ছে পেট এস ইও।

অন পেজ এসইও হচ্ছে ওয়েব সাইটের ভিতরে কনটেন্ট এর মাধ্যমে যে সমস্ত অপটিমাইজ গুলো করা হয় সেগুলো। হচ্ছে অন পেজ এসইও যেমন পোস্ট এবং ওয়েবসাইট ডিজাইন সুন্দর করে সাজানো এবং পেজ গুলো ভাল ভাবে অপ্টিমাইজ করা টা হচ্ছে অন পেজ এসইও যেটা আপনি আপনার নিজের সাইটে করবেন সেটাই হচ্ছে অন পেজ এসইও।

এবং অফ পেজ এসইও হচ্ছে আপনি আপনার নিজের সাইটের বাহিরে যে কাজগুলো করবেন সেগুলো হচ্ছে অফপেজ এসইও যেমন লিঙ্কবিল্ডিং অন্যের সাইটে নিজের ওয়েবসাইট এর লিংক শেয়ার করা। বিভিন্ন ফোরামে আপনার ওয়েবসাইটের লিঙ্ক শেয়ার করা। এবং বিভিন্ন সোশ্যাল মিডিয়াতে আপনার ওয়েবসাইটটিকে প্রচার করাটা হচ্ছে অফপেজ এসইও। যেখান থেকে আপনি ট্রাফিক গুলো নিয়ে আসবেন।

এস ইউর গুরুত্ব কতটা


এসইওর গুরুত্ব বলতে অনেকটাই ইন্টারনেটের অনেকটা জুড়ে অংশ রয়েছে এই এস ইও  আপনাকে অনলাইনে কাজ করার সব ক্ষেত্রে এস ইউ টা জানতে হবে।
 যদি আপনি এসইও না জানেন অনলাইনে খুব বেশি দূর আগাতে পারবে না মার্কেটিংয়ের ক্ষেত্রে বলেন না কেন ডিজিটাল মার্কেটিং সি পি এ মার্কেটিং এফিলিয়েট মার্কেটিং এই সমস্ত সব কাজের ক্ষেত্রে আপনাকে এটা খুব ভালোভাবে জানতে হবে আপনি যদি একজন এসইও এক্সপার্ট হতে পারেন আপনার সব কাজে সফলতা অর্জন করতে পারবেন এই এস ইও এর মাধ্যমে।
এটা হচ্ছে এমন একটা প্রক্রিয়া যা আপনার টার্গেটেড মানুষের কাছে আপনার যে কোন একটি বিষয়ক ওয়েবসাইট হক বা আপনার কোন একটি প্রডাক্ট সেটি আপনার ট্রাফিক এর কাছে পৌঁছে দেওয়ার মাধ্যম টাই হচ্ছে এস ইও।
  আপনি যদি একটি এস ইও ফ্রেন্ডলি ওয়েব সাইট অথবা ব্লক তৈরি করতে পারেন তাহলে আপনার সারা জীবন একটি ওয়েবসাইট বা একটি ব্লক দিয়ে আর্নিং করতে পারবেন শুধু একটি সাইট তৈরি করে যা থেকে আপনার সারা জীবন ইনকাম করতে পারবেন।

এসইও কিভাবে শিখবেন।


 এসইও শেখার জন্য অনেক ওয়েবসাইট রয়েছে এবং ব্লগিং রয়েছে এবং ইউটিউবে সার্চ দিলে আপনি অনেক ভিডিও পাবেন এস ইও এর  উপরে। খুব সর্টকাটে যদি শিখতে চান তাহলে খুব ভালো একটি প্রতিষ্ঠানে আপনি ভর্তি হতে পারে সেখান থেকে ভালো একটি দক্ষ প্রশিক্ষকের মাধ্যমে আপনি এস ইও এক্সপার্ট পারেন।

 তাছাড়া আপনি যদি চান অনলাইন থেকেও শিখতে পারেন সে ক্ষেত্রে আপনাকে অনেক পরিশ্রম করতে হবে এবং অনেকদিন ধৈর্য ধরতে হবে এবং অনেক খোঁজাখুঁজি করার মাধ্যমে আপনি এসইও শিখতে পারবেন। তবে অনলাইন থেকে শিখলি আপনি বেশি ভালো ভাবে শিখতে পারবেন কারণ শেখার মাধ্যমে আপনার প্রেকটিস হয়ে যাবে।

 আর প্রতিষ্ঠান শিখতে গেলে আপনাকে প্রশিক্ষক শেখাবে নিজে খোজার প্রাকটিস হবে না। দক্ষ হতে হলে আপনাকে অনেক প্র্যাকটিস করতে হবে প্রচুর পরিমাণে। যেখান থেকে শেখেন  না কেন আপনাকে প্রচুর পরিমাণ প্র্যাকটিস করতে হবে তাহলে আপনি একজন এস ইও এক্সপার্ট হতে পারবেন।
এবং এসইও এক্সপার্ট হতে পারলে আপনি প্রচুর পরিমাণে অনলাইনে কাজ করতে পারবেন যা কাজের কোন অভাব হবে না।

Post a Comment

0 Comments